রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তদের খালাস নারী জাতির অপমান-ফখরুল

  |  Friday, November 12th, 2021 |  7:06 pm

রাজধানীর বনানীর রেইনট্রি হোটেলে দুই তরুণীকে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদের ছেলে সাফাত আহমেদসহ পাঁচ আসামির সবাইকে খালাস দেওয়ার মধ্য দিয়ে সমস্ত ‘নারী জাতিকে’ অপমান করা হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

শুক্রবার (১২ নভেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের তফাজ্জল হোসেন মানিক মিয়া মিলনায়তনে এক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আদালতে অপরাধের স্বীকারোক্তি দেওয়ার পরও আসামিদের ছেড়ে দেওয়া হলো। কারণটা কী? কারণ যারা গ্রেপ্তার হয়েছে তারা খুব ক্ষমতাধর। আমি এর তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আদালতের সিদ্ধান্তে আমি হতাশ ও ক্ষুব্ধ হয়েছি। এ ধরনের রায় আমরা মেনে নিতে পারি না।’

বিএনপি মহাসচিবের অভিযোগ, বিচার ব্যবস্থা দলীয়করণের শিকার। তার দৃষ্টিতে, ‘বাংলাদেশের বিচার ব্যবস্থাকে পুরোপুরি দলীয়করণ করে ফেলা হয়েছে। এসকে সিনহাকে (সাবেক প্রধান বিচারপতি) বন্দুক দেখিয়ে দেশ থেকে বের করে দিলেন। কী কারণে? বিচারকদের অভিসংশনের ব্যাপারে উনি একটা রায় দিয়েছিলেন। সেটা সরকার মেনে নিতে পারেনি।’

সবকিছুর মূল্যবৃদ্ধিতে সাধারণ মানুষের দুর্ভোগের কথা তুলে ধরে মির্জা ফখরুল জানান, খনার বচন আছে—রাজার দোষে রাজ্য নষ্ট, প্রজার কষ্ট হয়। এটা আজকে এত মিলে যায়। আজকে এমন হয়েছে, সাধারণ মানুষের দুঃখ-কষ্ট বোঝার শক্তিও তার নেই। সরকার তেল, কেরোসিন, ডিজেলের দাম বাড়াল। ডিজেল সবচেয়ে বেশি ব্যবহার করে বাস, ট্রাকের মতো পরিবহন। পাজেরোর মতো ব্যক্তিগত গাড়িতে ডিজেল ব্যবহার হয় না। কেরোসিন ব্যবহার করে গ্রামের মানুষ। এলপিজিতে উবার চলে। প্রজারা কষ্ট পায়। আর রাজা প্যারিস, লন্ডন, গ্লাসগোতে বক্তব্য দেন। কিন্তু তার মানুষেরা কেমন আছে? যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বাইডেন ১০০টি গণতান্ত্রিক দেশের সঙ্গে সভা ডেকেছেন। সেখানে বাংলাদেশকে না ডাকায় প্রধানমন্ত্রীর সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল জানান, মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে অর্জিত দেশ আজকে অগণতান্ত্রিক।